মানুষের শত্রুতে পরিণত হয়েছে আওয়ামী লীগ: মির্জা ফখরুল

Hewlett-Packard

বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, দেশে আজ গণতন্ত্র নেই, নির্বাচন হয় না, দুর্নীতির কোনো জবাবদিহিতা নেই। যে যেভাবে পারছে, চুরি-ডাকাতি করছে। আইনশৃঙ্খলা বলতে কিছু নেই। এই দেশ তো আমরা চাইনি। আজকে এই দেশ তৈরি করেছে আওয়ামী লীগ। আজ আওয়ামী লীগ মানুষের সবচেয়ে বড় শত্রুতে পরিণত হয়েছে।

আজ (৩ সেপ্টেম্বর) জাতীয় প্রেসক্লাবের হলরুমে জাতীয়তাবাদী ওলামা দলের প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে ওলামা দল আয়োজিত আলোচনা সভায় এসব কথা বলেন মির্জা ফখরুল।

এসময় তিনি বলেন, এই সরকারকে সরিয়ে সত্যিকার অর্থে গণতান্ত্রিক সরকার প্রতিষ্ঠার আন্দোলনে আমরা নেতৃত্ব দেব, সে জন্য গোটা জাতি আমাদের দিকে তাকিয়ে আছে।

বিএনপি মহাসচিব বলেন, আজ দলীয় চেয়ারপারসন খালেদা জিয়া অসুস্থ, তার বিদেশে চিকিৎসার জন্য যাওয়া দরকার, তাকে বিদেশে যেতে দিচ্ছে না। ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে মিথ্যা মামলায় সাজা দিয়েছে। তিনি নির্বাসিত অবস্থায় বিদেশে অবস্থান করছেন। ৩৫ লাখ মানুষের বিরুদ্ধে মামলা দিয়েছে। বিরোধীদলকে দমন করে তারা অবৈধভাবে ক্ষমতায় থাকতে চায়। আগের রাতে নির্বাচন করে রাষ্ট্রযন্ত্রকে ব্যবহার করে তারা ক্ষমতায় বসে আছে।

মির্জা ফখরুল বলেন, যে সরকারের হাতে স্বাধীনতা স্বার্বভৌমত্ব নিরাপদ নয়, যাদের হাতে মানুষের জীবনের নিরাপত্তা নেই, যেখানে গণতন্ত্র নেই, মানুষের জীবিকার নিরাপত্তা নেই—সেই সরকারকে সরিয়ে সত্যিকার অর্থে একটা জনগণের সরকার প্রতিষ্ঠা করতে হবে। এটা আমাদের দায়িত্ব।

মির্জা ফখরুল আরও বলেন, কয়েকদিন ধরে আপনারা দেখছেন ই-কমার্স ব্যবসা। যেটা অনলাইনে বিভিন্ন রকমের ব্যবসা করে। শুধু ই-ভ্যালিই না, প্রায় ১১টির মতো প্রতিষ্ঠান মানুষের কাছ থেকে হাজার কোটি টাকা নিয়ে নিয়েছে। যার কোনো ব্যবস্থা সরকার আগে করতে পারেনি।

ওলামা দলের আহ্বায়ক মাওলানা শাহ মোহাম্মদ নেছারুল হকের সভাপতিত্বে আলোচনা সভায় আরও বক্তব্য দেন, বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, যুগ্ম-মহাসচিব সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, মহানগর উত্তর বিএনপির আহ্বায়ক আমান উল্লাহ আমান, দক্ষিণের আহ্বায়ক আব্দুস সালাম, নির্বাহী কমিটির সদস্য আবু নাসের রহমাতুল্লাহ, ওলামা দলের সদস্য সচিব মাওলানা নজরুল ইসলাম প্রমুখ।