বোলাররা জানত, আমি বল টেম্পারিং করব’- বেনক্রফটের বোমা!

তিন বছর আগে ২০১৮ সালে ক্রিকেবিশ্ব তোলপাড় করে ফেলেছিল ‘স্যান্ডপেপার গেট’ কেলেঙ্কারি। দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে গিয়ে বল টেম্পারিং করেছিলেন ক্যামেরন বেনক্রফট। তাকে এ কাজ করিয়েছিলেন দুই অজি সুপারস্টার স্টিভেন স্মিথ আর ডেভিড ওয়ার্নার। তীব্র বিতর্কের মাঝে অধিনায়কত্ব খোয়ান স্টিভ স্মিথ। পাশাপাশি প্রতারণার দায়ে তিনজনকেই বিভিন্ন মেয়াদে নিষিদ্ধ করা হয়। এতদিন পরেও সেই কেলেঙ্কারি নিয়ে আলোচনা হয়।

বলের আকার বদলে অতিরিক্ত সুবিধা পাওয়ার আশায় অধিনায়ক স্মিথ ও সহ-অধিনায়ক ওয়ার্নারের প্ররোচনায় শিরিষ কাগজ দিয়ে বল ঘষতে দেখা যায় ব্যানক্রফ্টকে। সেই ঘটনার পর কেটে গিয়েছে কয়েক বছর। নিষেধাজ্ঞা কাটিয়ে ওয়ার্নার এবং স্মিথ জাতীয় দলে ফিরেছেন। পাশাপাশি স্মিথের কাঁধে পুনরায় অধিনায়কের দায়িত্ব দেওয়া নিয়ে জল্পনা চলছে। কিন্তু সেই দিনের কাণ্ডটি যিনি ঘটিয়েছিলেন, সেই ব্যানক্রফটের আর ফেরা হয়নি। kalerkantho

সেই ক্ষোভ থেকেই হয়তো তরুণ ডান-হাতি ব্যাটসম্যান এবার দাবি করেছেন, দলের সব বোলাররা জানত সেদিন বল টেম্পারিং হবে। দ্য গার্ডিয়ানকে তিনি বলেন, ‘আমি ওই সময় নিজের দোষ ও কর্মকাণ্ডের দায়ভার নিজের কাঁধে নিতে চেয়েছিলাম। হ্যাঁ আমি যা করেছিলাম তা বোলারদের অতিরিক্ত সুবিধা পাইয়ে দেওয়ার জন্যেই করেছিলাম। সেই বিষয়ে সবাই জানত। এর জন্য বাড়তি কোনো প্রমাণের দরকার নেই। আমি যদি আরেকটু সচেতন হতাম, তাহলে সিদ্ধান্তে এমন ভুল হতো না।’

উল্লেখ্য, কুখ্যাত ‘স্যান্ডপেপার গেট’ কেলেঙ্কারির ঘটনায় অভিযুক্ত তিনজন ছাড়া বাকি ক্রিকেটারদের ‘ক্লিনচিট’ দিয়েছিল অস্ট্রেলিয়া ক্রিকেট বোর্ড। তখনকার কোচ ড্যারেন লেহম্যানের কোনো দায় ছিল না। তারপরেও তিনি ক্ষোভে দুঃখে পদত্যাগ করেছিলেন। তিন ক্রিকেটারই সংবাদ সম্মেলন করে জাতির কাছে ক্ষমা চেয়েছিলেন। তারপরেও অস্ট্রেলিয়ান ক্রিকেটপ্রেমীরা তাদের ক্ষমা করেনি অনেকদিন। এই অপকর্ম তারা মেনে নিতে পারেনি।