বিএনপির যেকোনো আন্দোলন দমন করার জন্য সরকার প্রস্তুত: ওবায়দুল কাদের

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘বিএনপির যেকোনো আন্দোলন দমন করার জন্য সরকার প্রস্তুত রয়েছে। দেশে আন্দোলনের নামে কোনো দল বিশৃঙ্খলা সৃষ্টি করলে তা কঠোর হাতে দমন করা হবে।’

আজ মঙ্গলবার সকালে ঢাকা আরিচা মহাসড়কের সাভারের আমিনবাজার এলাকায় গাবতলী আমিনবাজার দ্বিতীয় সেতুর নির্মাণ কাজ পরিদর্শন শেষে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, ‘রাষ্ট্রপতি সবাইকে নিয়ে সার্চ কমিটির মাধ্যমে নির্বাচন কমিশন গঠন করবে। দেশে নির্বাচন কমিশন নিরপেক্ষ হলে নিরপেক্ষ নির্বাচন সম্ভব। এখানে সরকারের কোনো হস্তক্ষেপ থাকবে না।’

ওবায়দুর কাদের আরও বলেন, ‘আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচন যথা সময়ে হবে ও নিরপেক্ষ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। নির্বাচনে কে আসলো আর না আসলো…. কারও জন্যে নির্বাচন বসে থাকবে না।’

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের বক্তব্যকে ‘সম্পূর্ণ রাজনৈতিক মিথ্যাচার’ দাবি করে সেতুমন্ত্রী বলেন, ‘বিএনপির হাত ধরেই এদেশে ক্যু ও হত্যার রাজনীতি বৈধতা পেয়েছিল। করোনাকালে পৃথিবীর প্রায় সব দেশে সকল রাজনৈতিক দল একযোগে মানুষ বাঁচানোর রাজনীতি করছে। এমনকি যেসব দেশে সরকারি ও বিরোধী দলের মধ্যে তুমুল বৈরিতা ছিল, তা দূর করে তারা ঐক্যবদ্ধভাবে মানুষের কল্যাণে কাজ করছে। কিন্তু দুর্ভাগ্যের বিষয় আমাদের সরকার জননেত্রী শেখ হাসিনার সুদক্ষ নেতৃত্বে যখন মানুষের জীবন-জীবিকা রক্ষার জন্য প্রাণপণ কাজ করছে, ঠিক তখনই বিএনপি নামক রাজনৈতিক দলটি প্রতিদিন ভ্রান্ত-মিথ্যা-বানোয়াট বক্তব্য দিয়ে মানুষের দুর্ভোগ বাড়িয়েই যাচ্ছে।’