পাকিস্তানে বিনিয়োগ করা থেকে সরে আসতে চাইছে চীন, বিপাকে পাকিস্তান

ডেস্ক রিপোর্ট: চীন-পাকিস্তান অর্থনৈতিক করিডরের (সিপিইসি) উন্নয়নে পাকিস্তানকে ৬০ বিলিয়ন মার্কিন ডলার বিনিয়োগের প্রতিশ্রুতি দিয়েছিল চীন। মূলত পাকিস্তানজুড়ে দুর্নীতি বৃদ্ধি ও সম্প্রতি চীনা প্রকৌশলীদের ওপর সন্ত্রাসী (জঙ্গি) হামলার কারণে চুক্তি থেকে সরে আসতে চাইছে তারা। এতে বিপাকে পড়েছে পাকিস্তান। খবর ইকোনমিক টাইমস।

সম্প্রতি পাকিস্তানের বেলুচিস্তান প্রদেশে চীনা প্রকৌশলীদের ওপর জঙ্গি হামলা হয়। হামলায় আহতরা সিপিইসির কাজের সঙ্গে যুক্ত। এর পরপরই ইমরান খান সরকার সে দেশের সেনাবাহিনীর ওপর সিপিইসির পুরো দায়িত্ব দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয়।

চীনা প্রকৌশলীদের ওপর এ জঙ্গি হামলার পর পাকিস্তান সেনাবাহিনী সিপিইসির পুরো দায়িত্ব নিতে যাচ্ছে। পাকিস্তান সেনাবাহিনী চীনা ইঞ্জিনিয়ারদের নিরাপত্তার নিশ্চয়তা দিয়েছে।

ভঙ্গুর অর্থনৈতিক অবস্থায় পাকিস্তানের জন্য সিপিইসি একটি বহুল প্রতীক্ষিত প্রকল্প। এ প্রকল্প বাস্তবায়ন হলে এটি পাকিস্তানের অর্থনৈতিক উন্নয়নে বিরাট ভূমিকা রাখবে। পাকিস্তানের অর্থনীতিতে অনেকটা সাহায্য করে চায়না ডেভেলপমেন্ট ব্যাংক এবং চায়না এক্সপোর্ট-ইমপোর্ট ব্যাংক।

পাকিস্তান পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের উচ্চপর্যায়ের এক সূত্র জানায়, সিপিইসি প্রকল্প দ্রুত বাস্তবায়নে পাকিস্তান চীনা সরকারি ও বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে যৌথ কর্মপরিকল্পনা ঠিক করেছে। এর মধ্যে রেলওয়ে প্রকল্প যোগ করা হয়েছে। আমাদের বিদেশি বিনিয়োগ দরকার। তাই আমরা এ মেগাপ্রকল্প বাস্তবায়নে যোগাযোগব্যবস্থার ওপর আরো জোর দিয়েছি।

এদিকে পাকিস্তানকে ঋণের জাল থেকে উদ্ধার করতে আবারও ১৫০ কোটি ডলার আর্থিক সহায়তা দিয়েছে চীন। সৌদি আরবের কাছে পাকিস্তানের ২০০ কোটি ডলারের ঋণ আছে। এ ক্ষেত্রে চীন যে আর্থিক সহায়তা দিচ্ছে, সেখান থেকে ১০০ কোটি ডলার পরিশোধ করা হয় গত সোমবার। বাকি ১০০ কোটি জানুয়ারিতে শোধ করার কথা। সূত্র:ইকোনমিক টাইমস।