‘কোনো ধর্মই হানাহানির কথা বলে না, সমর্থন করে না’

‘ধর্মের অনেক অপব্যাখ্যা করা হয় এবং মানুষকে ভুল পথে পরিচালিত করার অপচেষ্টাও করা হয়। কিন্তু কোনো ধর্ম হানাহানির কথা বলে না, সমর্থনও করে না। সব ধর্মের প্রতিই শ্রদ্ধাশীল হওয়া উচিত।’

আজ বুধবার (৬ অক্টোবর) সকালে রাজধানীর বনানীর পূজামণ্ডপে শুভ মহালয়ার অনুষ্ঠানে যোগ দিয়ে এসব কথা বলেন তথ্যমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ।

তথ্যমন্ত্রী বলেন, পৃথিবীতে আমরা দেখতে পাই ধর্মের অনেক অপব্যাখ্যা করা হয় এবং অপব্যাখ্যা করে মানুষকে ভুল পথে পরিচালিত করার অপচেষ্টাও করা হয়। সেই কারণে পৃথিবীর বিভিন্ন জায়গায় নানা ধরনের হানাহানি সৃষ্টি হয়, কিন্তু কোনো ধর্ম এ হানাহানির কথা বলে না, সমর্থনও করে না।’

সব ধর্মের প্রতিই শ্রদ্ধাশীল হওয়া উচিত বলে মন্তব্য করেন তথ্যমন্ত্রী।

মহালয়ার মধ্য দিয়ে হিন্দু সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় উৎসব দুর্গাপূজার আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়েছে। এই দিনে কৈলাস থেকে মা দুর্গা পিতৃগৃহে আগমন করেন। দেশজুড়ে মন্দিরে দেবী দুর্গার আগমনী বার্তায় সনাতন ধর্মাবলম্বীদের ঘরে ঘরে উৎসবের আমেজ শুরু হয়েছে।

এ উপলক্ষে রাজধানীসহ দেশজুড়ে বিভিন্ন মন্দির ও পূজা কমিটি নানা কর্মসূচি পালন করছে। মহানগর সর্বজনীন পূজা কমিটির উদ্যোগে ঢাকেশ্বরী জাতীয় মন্দিরে নেওয়া হয়েছে বিভিন্ন কর্মসূচি। সকাল ৬টায় ঢাকেশ্বরী মন্দির প্রাঙ্গণে অনুষ্ঠিত হয় মহালয়ার ঘট স্থাপন, সকাল ৯টায় চণ্ডীপাঠ এবং সকাল ১১টা পর্যন্ত বিশেষ পূজা অনুষ্ঠিত হয়।