ইতালিতে বাধ্যতামূলক হলো ‘গ্রিন পাস’ সার্টিফিকেট

করোনা ভাইরাসের (কোভিড-১৯) সংক্রমণ রোধে সব খাতের কর্মজীবীদের জন্য ‘গ্রিন পাস’ বাধ্যতামূলক করেছে ইতালি সরকার। বৃহস্পতিবার (১৬ সেপ্টেম্ববর) ইউরোপের অন্যতম অর্থনৈতিক দেশ হিসেবে প্রথম এ ঘোষণা দেওয়া হলো। আগামী ১৫ অক্টোবরের পর থেকে কর্মজীবীদের করোনার হেলথ পাশ দেখাতে হবে। খবর বিবিসি’র।

করোনা মহামারিতে বিপর্যয়ের মধ্য দিয়ে যাওয়া দেশটির প্রধানমন্ত্রী মারিও দ্রাঘির পক্ষ থেকে এ ঘোষণা এলো। এতে বলা হয়েছে, সরকারি বেসরকারি সব প্রতিষ্ঠানের কর্মীদের টিকা দেওয়ার প্রমাণপত্র, সাম্প্রতিক করোনা টেস্টের নেগেটিভ রিপোর্ট অথবা সুস্থ হওয়ার পর পূর্বের ছয় মাসের কাজের অনুমতিপত্র দেখাতে হবে।

ইতালিতে বেসরকারি প্রতিষ্ঠানে কাজ করে এমন মানুষের সংখ্যা ১ কোটি ৪৭ লাখ এবং সরকারি প্রতিষ্ঠানে কাজ করে ৩ কোটি ২০ লাখ মানুষ, যাদের গ্রিন পাশের প্রয়োজন পড়বে। গ্রিন পাস নিশ্চিত করতে ব্যর্থ হলে কর্মীদের বরখাস্তের নির্দেশনাও দেওয়া হয়েছে।

তবে এ ঘোষণায় ক্ষুব্ধ দেশটির সাধারণ মানুষ। ইতালিতে করোনা আক্রান্ত হয়ে প্রাণ গেছে ১ লাখ ৩০ হাজারের বেশি মানুষের। এখন পর্যন্ত দেশটিতে দুই ডোজ টিকার আওতায় এসেছে মোট জনসংখ্যার ৬৫ শতাংশ।